চাঁপাইনবাবগঞ্জের মুগ্ধকর ‘আলপনা গ্রাম’

এ গ্রামের প্রত্যেকটি বাড়ি আলপনা দিয়ে সাজানো। গ্রামের সৌন্দর্য দেখে মন জুড়িয়ে যাবে। রঙ, চিত্র, প্রকৃতি, রূপবৈচিত্র্য- সবকিছুর সংমিশ্রণে একটি মনোমুগ্ধকর পরিবেশ তৈরি হয়েছে।

বাংলাদেশের গ্রামাঞ্চলে সাধারণত কাঁচা বাড়িতে উঠোন-ঘরবাড়ি পরিষ্কার রাখা হয়। এঁটেল মাটি ও পানির সংমিশ্রণ দিয়ে উঠোন, বারান্দা এবং ঘরের চারপাশে লেপে দেয়া হয়। এতে ঘরবাড়ি সুন্দর দেখা যায়। সামনে কোনো বিশেষ অনুষ্ঠান থাকলে এসব কাজ করা হয়।

কিন্তু ব্যতিক্রম হলো আলপনা গ্রাম। এই গ্রামের মানুষেরা ঘরবাড়ি সুন্দর রাখার জন্য অন্য উপায় বেছে নিয়েছেন। বাড়ির উঠোন, ঘরের চারপাশ, বারান্দায় আলপনা আঁকা হয়।

বিভিন্ন ধরনের আলপনা আঁকা হয় এই গ্রামে। রঙ-তুলির স্পর্শে যত ধরনের প্রাকৃতিক চিত্র আঁকা যায়, তার সবই প্রতিটি বাড়িতে শোভা পায়। ছোট বাচ্চারাও খেলার ছলে অনেক কিছু আঁকাআঁকিতে নেমে পড়ে। কল্পনার রঙে পুরো গ্রাম রাঙিয়ে তুলেছেন সেই গ্রামের মানুষেরাই। মাটির ঘরের দেয়ালে অজস্র রঙের ছটায় রঙিন হয়ে উঠেছে চারপাশ।

প্রজন্ম থেকে প্রজন্ম গ্রামের বধূ ও মেয়েরা ঘরের চারপাশে এঁকে থাকেন এসব। গ্রামীণ জনপদটির শৈল্পিক রুচি ও মননশীলতার পরিচয় মেলে এই আলপনা চর্চায়।