লিগ্যাল নোটিশ কি এবং লিগ্যাল নোটিশ লেখার নিয়ম

কারো বিরুদ্ধে হুট করে মামলা করা ঠিক না, মামলা করার আগে তাকে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিতে হয় । এ জন্য সথেকে উত্তম উপায় হল সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে একজন আইনজীবীর মাধ্যমে একটি নোটিশ প্রদান করে বিবধমান বিষয়টি আপসে মীমাংসার জন্য একটি সুযোগ দেওয়া।অর্থাৎ কোনো ব্যক্তির দ্বারা কেউ আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হলে প্রাথমিকভাবে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে একজন আইনজীবীর দ্বারাএকটি নোটিশ প্রদানের মাধ্যমে কয়েকদিনের মধ্যে পাওনা টাকা পরিশোধের জন্য আল্টিমেটাম দেওয়া উচিত ।

নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নোটিশের জবাব না এলে বা সমস্যাটির সমাদান না হলে তখন মামলা দায়ের করতে হবে।

দেখেছি অনেক বিবাদ শুধুমাত্র উকিল নোটিশের মাধ্যমেই সমাধান হয়ে গেছে । সুতরাং যে কোন দেওয়ানী মামলায় জাওয়ার আগে অন্তত একবার হলেও বিরোধি পক্ষকে একটি উকিল নোটিশ দিয়ে বিষয়টি আপোষে মীমাংসার জন্য চেষ্টা করুন।

তো চলুন এখন দেখি উকিল নোটিশ কি  

কতদিন সময় দিতে হবে তার নির্দিষ্ট নিয়ম নেই।  তবে  সাধারণত ২৪ ঘন্টা থেকে থেকে ১ মাস পর্যন্ত সময় দেয়া হতে পারে। নোটিশটি সরকারি ডাকযোগে প্রতিপক্ষের স্থায়ী ঠিকানা ও বর্তমান ঠিকানা বরাবর পাঠাতে হবে।

শেয়ার করুন:

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on email
Share on print

আরও পড়ুন: